আনারসের পুরভরা সন্দেশ

আনারসের পুরভরা সন্দেশ (my special)……
রেগুলার সন্দেশ থকে একটু ভিন্ন কিন্তু স্বাদ আলহামদুলিল্লাহ……?

সহজ উপাদান, স্বাদে অপূর্ব বাঙ্গালীর মিস্টান্নর তুলনা নেই…

উপকরনঃ
• ছানাঃ ২ লিটার দুধের(পিঊর গরুর দুধের ফ্রেশ ছানা নিন)
• গুড়োদুধঃ ১/৪ কাপ
• পাউডার চিনিঃ ১/৪কাপ বা স্বাদমত( চিনি ও গুড়োদুধ এর বদলে ১/২ কাপ কনডেন্সড মিল্ক দিলেও হবে)
• ঘিঃ ১টেবিলচামচ
• এলাচগুড়ো ও গোলাপজল ১/২ চামচ করে(পছন্দমত, না দিলেও হবে)
গুড়োদুধ বা মাওয়াকুচি কোটিং এর জন্য

[****ছানা তৈরিঃ
• দুধঃ ২ লিটার
• লেবুর রসঃ ৩ টেবিলচামচ/ ভিনেগার(লেবুর রসে মিষ্টি সফট হয়)
• সুতি /মসলিন নরম কাপড়
দুধ চুলায় দিয়ে ফুটতে শুরু করলেই চুলা বন্ধ করে দিন।
লেবুর রসের সাথে ২ টেবিলচামচ পানি মিশিয়ে অল্প অল্প করে দুধে মিশাতে থাকুন।দুধ ফেটে সবুজ পানি আলাদা হয়ে গেলে সাথে সাথে ছানা কাপড়ে ছেকে ফেলুন। কয়েকবার ধুয়ে নিন যাতে লেবুর টক ভাব দূর হয়ে যায়।ঠান্ডা করে ছানার কাপড়ের পুতলি চেপে পানি বের করে উচু জায়গাতে ঝুলিয়ে রাখুন ৩০ মিনিট।]

আনারসের পুর এর জন্যঃ

  • আনারস মিহি কুচিঃ ১কাপ
  • চিনিঃ ২টেবিলচামচ
  • ঘিঃ ১টেবিলচামচ
  • বাদামকুচিঃ ২টেবিলচামচ

প্রনালি

প্যানে ঘি দিয়ে আনারস ,চিনি দিন। শুকনো হলে বাদামকুচি দিয়ে নামিয়ে নিন।

ছানা ও গুড়োদুধ ভাল করে মথে নিন বা ফুড প্রসেসরে একদম মিহি করে নিন।কোন দানা না থাকে যেন।


প্যান ঘি গরম করে চুলার আচ একদম কমিয়ে দিন।এখন ছানার মিশ্রন দিয়ে অনবরত নাড়তে থাকুন।পানি একদম শুকিয়ে গেলে চিনি দিন ও নাড়ুন।চাইলে এই সময় এলাচগুড়ো ও গোলাপজল দিতে পারেন।চিনি একদম মিশে গেলে চুলা বন্ধ করুন।(পুরো প্রসেস করতে ১০-১৫ মিনিট সময় লাগবে)

অন্য প্লেটে নিয়ে গরম মিশ্রণটি হাত দিয়ে একটু মথে মিহি করে ডো এর মত করে নিন।

কোন পিঠার সাজ বা ইচ্ছেমত আকারের বানিয়ে ভিতরে আনারসের পুর দিয়ে চারিপাশ ছানা দিয়ে মুরে নিন।

এখন গুড়োদুধ বা মাওয়াকুচি তে গড়িয়ে ঠাণ্ডা করে পরিবেশন করুন অসম্ভব টেস্টি এই সন্দেশ।

 

Leave a Reply

 
 
 
 
error: Content is DMCA Protected !!